মাগুরার শালিখায় সুমন নামে এক ব্যাক্তির আত্মহত্যা

শালিখা

মাগুরা সংবাদঃ

শালিখা,প্রতিনিধিঃ মাগুরার শালিখায় গুল খেয়ে সুমন (৩০) নামে এক ব্যাক্তি আত্মহত্যা করেছে। সে নড়াইল দারিয়াপুর গ্রামের রাজ্জাক মোল্যার ছেলে। তার পারিবারিক সমস্যার কারনে সে দীর্ঘ দিন যাবত শালিখা উপজেলার আদাডাঙ্গী গ্রামের নানা আকমল মাষ্টারের বাড়ীতে বসবসাব করে।কিন্তু বুধবার দুপুরে উপজেলার আদাডাঙ্গী গ্রাম থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, দীর্ঘদিন যাবত পেটের ব্যাথায় ভুগছিল সুমন মোল্যা। অভাবের সংসার হওয়ায় তার চিকিৎসার টাকা জোগাতে হিমশীম খেতে হচ্ছিল। যে কারনে বাড়ীর সাথে একটি ছোট মুদিখানার দোকানও দেয় সে। তাতেও তার সংসার চলছিলনা। রাত দিন তার স্ত্রী এক সন্তানের জননী মিতু খাতুনের সাথে ঝগড়া লেগেই থাকতো। এক পর্যায়ে বুধবার দুপুর দুইটার দিকে সে অতিরিক্ত গুল খেলে তাকে স্থানীয় শালিখা হাসপাতালে নিয়ে ওয়াস করানো হয়। এর পর কর্তৃব্যরত চিকিৎসক তার অবস্থা ক্রমেই খারাপ দেখে পরিবারের লোকজনদেরকে যশোর হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেন। যশোর হাসপাতালে নেওয়ার সময় পথিমধ্যে তার মৃত্যু হয়। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ব্যাক্তি জানিয়েছেন, স্ত্রীর পরকীয়ার ঘটনা স্বামী দেখে ফেলেছিলো। যে কারনে সে স্ত্রীর উপর অভিমান করে হয়তো গুল খেয়ে আত্মহত্যা করেছে। এই ঘটনায় তাদের মধ্যে প্রাই ঝগড়া হতো। স্ত্রী মিতু খাতুন জানাই এমন কোন ঘটনা নেই, আসলে সে পেটে ব্যাথার চিকিৎসা না করাতে পেরে গুল খেয়ে ছিল। এ ব্যাপারে শালিখার হাজরাহাটি তদন্ত নেন্দ্রের ইনচার্জ মোঃ লিয়াকত আলী জানান, পেটে ব্যাথা কারনে ও অভাবের সংসার থাকায় সে গুল খেয়ে আত্মহত্যা করেছে। তবে পরিবারের কারো কোন অভিযোগ না থাকায় ও উর্ধতন কর্তৃপক্ষের অনুমতিতে রাতে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এ ব্যাপারে একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *