স্প্রেডার মেশিনের সাহায্যে আটকে থাকা শালিখার আল-আমিনের লাশ উদ্ধার

শালিখা

মাগুরা সংবাদ

যশোর-মাগুরা মহাসড়কের খাজুরার গাইদঘাট কোল্ড স্টোরেজের সামনে এক পথচারীকে চাপা দিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা খেয়ে দুমড়ে মুচড়ে গেছে ইট বহনকারী ট্রাক। এতে ট্রাকের চালকও নিহত হয়েছেন।

নিহতরা হলেন যশোরের বাঘারপাড়ার গাইদঘাট ঘোপপাড়ার মৃত মুজিবর শিকদারের স্ত্রী বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ফুল বড়ু বেগম (৭০) ও ট্রাকের ড্রাইভার মাগুরার শালিখার হরিশপুর দেয়াডাঙ্গার আব্দুল লতিফের ছেলে আল-আমিন (২৫)।

এ সময় ট্রাকের পেছনে বগিতে থাকা ৪জন শ্রমিক আহত হয়। আহতরা হলেন হরিশপুর দেয়াডাঙ্গার ইজাজ বিশ্বাসের ছেলে মেহেদী হাসান (২২), একই গ্রামের নুর আলীর ছেলে আলী হামজা (২৪), কুবাদ আলীর ছেলে মাসুম বিল্লাহ (২২) ও এসকেন মোল্লার ছেলে লিমন হোসেন (১৯)।

শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। প্রতক্ষ্যদর্শীরা জানায়, যশোর থেকে ছেড়ে আসা মাগুরার সিমাখালী চিত্রা ব্রিকস্রে ইট বহনকারী যশোর-ট-১১-৫৩১৬ ট্রাকটি বুদ্ধি প্রতিবন্ধী পথচারী ফুল বড়ুকে চাপা দেয়।

এ সময় ট্রাকটি নিয়ন্ত্রন হারিয়ে রাস্তার পাশে একটি মোটা রেইন্টি গাছে ধাক্কা লাগলে ট্রাক চালক আল-আমিন মারা যান। এদিকে খবর পেয়ে স্থানীয় খাজুরা পুলিশের ইনচার্জ এসআই জুম্মান খান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে নিহত পথচারীর লাশ উদ্ধার করে। পরে বাঘারপাড়া থানা পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়।

যশোর ও বাঘারপাড়া ফায়ার সার্ভিসের দু’টি ইউনিট এসে ট্রাক ও গাছের মাঝে আটকে থাকা চালকের লাশ স্প্রেডার মেশিনের সাহায্যে উদ্ধার করে। এর পরপরই বারোবাজার হাইওয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে হাজির হয়।

বারোবাজার হাইওয়ে পুলিশের এসআই কালিপদ পোদ্দার দু’জনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, নিহতের পরিবারের আবেদনের প্রেক্ষিতে লাশ ময়নাতদন্ত ছাড়াই তাদের হাতে হস্তান্তর করা হয়। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। বর্তমানে ঘাতক ট্রাকটি তাদের হেফাজতে রয়েছে বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *