সংবর্ধনা দেয়া হলো মাগুরার ফ্রিস্ট্যাইলার মাহমুদুল হাসান ফয়সালকে

খেলাধুলা মাগুরা সদর

মাগুরা সংবাদঃ

গেল জানুয়ারিতে ওয়ালটনের ব্যানারে দুই হাত গোল করে তার মধ্যে এক মিনিটে সবচেয়ে বেশিবার (১৪৪ বার) বাস্কেটবল ঘুরিয়ে গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ড গড়ার প্রচেষ্টা চালান মাগুরার ফ্রিস্ট্যাইলার মাহমুদুল হাসান ফয়সাল।

এপ্রিলের ৫ তারিখ তার এই রেকর্ডের (Most basketball arm rolls in one minute) স্বীকৃতি দেয় গিনেস বুক কর্তৃপক্ষ। সোমবার এই রেকর্ড গড়ায় তাকে সংবর্ধনা দিয়েছে ওয়ালটন গ্রুপ। ওয়ালটনের ব্যানারে রেকর্ড গড়ায় তাকে নগদ ৫০,০০০ (পঞ্চাশ হাজার) টাকা ও ওয়ালটনের সামগ্রী দিয়ে উৎসাহিত করা হয়।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে ফয়সাল বলেন, ‘এর আগে আমি ফুটবল দিয়ে আর্ম রোলিংয়ে ওয়ার্ল্ড রেকর্ড গড়েছি। এবার বাস্কেটবল দিয়ে আর্ম রোলিংয়ে রেকর্ড গড়েছি। আমার দুটি রেকর্ড গড়ার সঙ্গেই ছিল ওয়ালটন। আগেরবারের মতো এবারও তারা আমাকে সংবর্ধনা দিল। সে জন্য ওয়ালটন গ্রুপকে আমি ধন্যবাদ জানাই। তাদের কাছে আমি কৃতজ্ঞ। আশা করছি ভবিষ্যতেও তারা আমার পাশে থাকবে। আমি ভবিষ্যতেও এই রেকর্ড গড়ার ধারা অব্যাহত রাখব।’ফয়সালের মা মঞ্জুয়ারা খানম অনুভূতি প্রকাশ করতে গিয়ে বলেন, ‘প্রথমে আমরা তার এই বিষয়টিকে খুব একটা সাপোর্ট করতাম না। কিন্তু তার আগ্রহ দেখে আমরা বারণ করিনি। আমরা যখন ঘুমিয়ে যেতাম তখন সে রাত জেগে ফুটবল ও বাস্কেটবল নিয়ে প্রাকটিস করতো। এরপর ওয়ালটন গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় সে প্রথম রেকর্ড গড়ে। এরপর দ্বিতীয় রেকর্ডটি গড়েছে। ওয়ালটন গ্রুপকে আমি ধন্যবাদ জানাতে চাই।’

এর আগে ফয়সাল ওয়ালটন গ্রুপের ব্যানারে এক মিনিটে দুই হাত গোল করে তার মধ্যে ১৩৪ বার হাত ঘুরিয়ে (Most football arm rolls in one minute) রেকর্ড গড়েছিলেন।১৮ বছর বয়সী ফুটবল ফ্রিস্ট্যাইলার ফয়সাল ২০১৪ সাল থেকে এই প্রচেষ্টা শুরু করেন। সেটা শুধু ফুটবল ও বাস্কেটবল নিয়ে নয়, বিভিন্ন বিষয় নিয়ে। মাহমুদুল হাসানের জন্ম নড়াইলের কালিয়াতে। পৈতৃক নিবাস মাগুরার হাজীপুর। সেখানেই তিনি বেড়ে উঠেছেন। কাটিয়েছেন শৈশব ও কৈশর। বাবা আগে সেনাবাহিনীতে চাকরি করতেন। বর্তমানে অবসরপ্রাপ্ত। মাগুরা সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ থেকে এসএসসি পাসের পর মাগুরা পলিটেকনিক ইনিস্টিটিউটে ভর্তি হন ফয়সাল। তিনি ফুটবল, বাস্কেটবল দিয়ে বিভিন্ন ধরণের কসরত দেখানোর পাশাপাশি আরো বেশ কয়েকটি বিষয়ে পারদর্শী। রেকর্ড ভাঙা ও গড়াটাকে প্যাশন হিসেবে নিয়েছেন তিনি।

এই আয়োজনের মিডিয়া পার্টনার ছিল এটিএন বাংলা। রেডিও পার্টনার ছিল রেডিও টুডে। সহযোগিতায় ছিল ওয়ালটন গ্রুপের জনপ্রিয় ব্র্যান্ড মার্সেল। আর অনলাইন পার্টনার ছিল দেশের অনলাইন নিউজ পোর্টাল রাইজিংবিডি.কম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *